সাহাবউদ্দিন মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল সিলগালা

প্রকাশিত: ১২:২২ অপরাহ্ণ, জুলাই ২০, ২০২০

ভর্তি থাকা করোনা রোগী স্থানান্তরের পর রাজধানীর গুলশানের সাহাবউদ্দিন মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল সিলগালা করা হবে বলে জানিয়েছেন র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সারোয়ার আলম।

সোমবার সারোয়ার আলম জানান, ভর্তি থাকা রোগীদের চিকিৎসা নিরবচ্ছিন্ন করতে এবং তাদের যেন কোনো বিঘ্ন না ঘটে সেদিক বিবেচনা করে হাসপাতালটি সিলগালা করা হয়নি।

তিনি বলেন, অন্য হাসপাতালে রোগী স্থানান্তরের ব্যবস্থা করা হচ্ছে। রোগী খালি করার পর এটি সিলগালা করা হবে।

এর আগে গতকাল রোববার করোনা চিকিৎসাসহ বিভিন্ন অভিযোগে সাহাবউদ্দিন মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সারোয়ার আলম।

অভিযানে হাসপাতালে করোনা পরীক্ষা নিয়ে জালিয়াতিসহ করোনা নেগেটিভ ব্যক্তিকে পজিটিভ বলে ভর্তি রেখে অতিরিক্ত বিল করার প্রমাণ পেয়েছে র‌্যাব। এছাড়া বেশকিছু অসঙ্গতি পাওয়া গেছে। এসব ঘটনায় হাসপাতালের দুই কর্মকর্তাকে আটক করা হয়।

অভিযান শেষে সারোয়ার আলম বলেন, বিভিন্ন ধরনের অনিয়ম ও অসঙ্গতি পেয়েছি সাহাবউদ্দিন হাসপাতালে। এরমধ্যে প্রতিষ্ঠানটির অ্যান্টিবডি টেস্টের কোনো অনুমোদন না থাকলেও তারা কিট দিয়ে বিভিন্ন মানুষকে অ্যান্টিবডি টেস্ট করেছে। অ্যান্টিবডি টেস্ট করার তাদের কোনো অনুমোদন ছিল না। কিন্তু তারপরও তারা অ্যান্টিবডি টেস্ট করেছে। এজন্য প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

অভিযানে হাসপাতাল থেকে অসংখ্য অননুমোদিত কিট ও জাল রিপোর্ট উদ্ধার করেছে র‌্যাব। এসব কিট কীভাবে প্রতিষ্ঠানটি নিয়ে এসেছে তার কোনো সঠিক উত্তর দিতে পারেনি তারা। এছাড়া রিপোর্ট প্রদানের ক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠানটি সরকারি কর্মকর্তাদের স্বাক্ষর জাল ও কম্পিউটারে স্ক্যান করে বসিয়ে নিতো বলেও জানায় র‌্যাব।