Templates by BIGtheme NET
শিরোনামঃ
Home / ব্রেকিং নিউজ / বিদ্রোহী প্রার্থীদের প্রতি শেখ হাসিনার খোলা চিঠি ।। songbadprotidinbd.com

বিদ্রোহী প্রার্থীদের প্রতি শেখ হাসিনার খোলা চিঠি ।। songbadprotidinbd.com

  • ০৮-১২-২০১৮
  • image-52707-1544259319নিজস্ব প্রতিবেদক: আওয়ামী লীগ ও মহাজোটের বিদ্রোহী প্রার্থীদের উদ্দেশ্যে দলের সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা একটি খোলা চিঠি লিখেছেন। ডাক যোগে এ চিঠি মনোনয়ন বঞ্চিতদের কাছে পৌঁছে দেওয়া হচ্ছে।শনিবার রাজধানীর ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে একথা জানিয়েছেন দলের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর কবির নানক।

    কতজন বিদ্রোহী প্রার্থী আছেন? সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, এমন প্রার্থী ২৪ জন ছিল। তাদের মধ্যে ৬-৭ জন মনোনয়ন প্রত্যাহার করে নিতে রাজি হয়েছেন। আশা করছি, আগামীকালের মধ্যে সবাই প্রত্যাহার করে নেবেন। এ বিষয়ে কেন্দ্রীয় নেতাদের সঙ্গে তাদের কথা হচ্ছে।

    চিঠিতে উল্লেখ আছে দেশের জনগণের জন্য আওয়ামী লীগের ও তার সহযোগী সংগঠনের যে প্রার্থী আছে তাদেরকে নৌকাকে বিজয় করে এদেশের জীবনমান উন্নয়নে সার্বিক সহযোগিতা চেয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।সংবাদ প্রতিদিন বিডি পাঠকদের জন্য তা তুলে ধরা হলো।

    48053027_515119232319915_2047268978513936384_n

    জনাব,

    আমার শুভেচ্ছা গ্রহণ করবেন।

    আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আমাদের প্রাণ প্রিয় সংগঠন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রাপ্তির প্রত্যাশায় সংগঠনের সংসদীয় মনোনয়ন বোর্ডের আবেদন করার জন্য আপনাকে আন্তরিক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি।

    বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ এই জনপদের একটি ঐতিহ্যবাহী ও প্রাচীনতম রাজনৈতিক সংগঠন এদেশের মানুষের অধিকার আদায়ের সংগ্রাম, ভাষা আন্দোলন থেকে শুরু করে স্বাধিকার, স্বাধীনতা সংগ্রাম ও মহান মুক্তিযুদ্ধের নেতৃত্বে দিয়েছে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সংগঠন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সকল সাংগঠনিক কার্যক্রমের মতো যে কোনো নির্বাচনে দলীয় প্রার্থীর বাছাই প্রক্রিয়াও পরিচালিত হতো একটি সুনিদিষ্ট গণতান্ত্রিক পদ্ধতি অনুসরণ করে। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সংসদীয় বোর্ডের সদস্যগণের সুচিন্তিত মতামত, তৃণমূল নেতাদের পরামর্শ এবং আমাদের সংগঠন কর্তৃক পরিচালিত একাধিক নিবিড় জরিপ কার্যক্রম এর সুপারিশের ভিত্তিতে দলীয় প্রার্থী চূড়ান্ত করা হয়।

    আপনি অবগত আছেন, আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন প্রাপ্তির জন্য প্রায় চার হাজারের অধিক ব্যক্তি মনোনয়নপ্রাপ্ত দাখিল করেছেন। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে তাদের প্রায় সকলেরই অবদান রয়েছে। রাজনীতিক ত্যাগ, দক্ষতা, যোগ্যতা ও জনপ্রিয়তার বিচারে প্রায় প্রত্যেকটি আসনেই ছিল একাধিক যোগ্য প্রার্থী। একাধিক আবেদনকারীর মধ্যে থেকে একজনকে প্রার্থী হিসেবে নির্ধারণ করার কাজটি ছিল অত্যন্ত কঠিন ও দুরূহ। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সংসদীয় মনোনয়ন বোর্ড অত্যন্ত সতর্কতার সাথে প্রতিটি আবেদনপত্র প্রাপ্ত তথ্য এবং মাঠ পর্যায়ে জরিপের ফলাফল পর্যালোচনা করে একটি প্রতিদ্বন্দ্বিতামূলক নির্বাচনে বিজয়ী হওয়ার বিষয়টি বিবেচনায় রেখে দলীয় প্রার্থী চূড়ান্ত করেছে।

    আমাদের সংগঠন মনোনয়ন সুনির্দিষ্ট পদ্ধতিগত প্রক্রিয়া ও সংসদীয় বোর্ডের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী আপনাকে মনোনয়ন দিতে না পারায় আমি আন্তরিকভাবে দুঃখ প্রকাশ করছি। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ একটি শক্তিশালী ও কল্যাণমুখী রাজনৈতিক দলে পরিণত করার কাজে আপনার ভূমিকা ছিল প্রশংসনীয়। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক কর্মসূচি বাস্তবায়ন ও দেশের কল্যাণে ভূমিকার জন্য আপনাকে আন্তরিক কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি। আমি বিশ্বাস করি, আমাদের প্রিয় মাতৃভূমি ও প্রাণপ্রিয় সংগঠন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের প্রতি আপনাদের ভালবাসা-আনুগত্য বিশ্বস্ততা আগামীতেও থাকবে।

    বিএনপি-জামায়াতের হিংস্র থাবা থেকে দেশ ও জাতিকে রক্ষা করে বাংলাদেশের টেকসই গণতান্ত্রিক শাসন ব্যবস্থা প্রতিষ্ঠার জন্য আগামী একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। এ কারণে আমরা সমমনা অন্যান্য রাজনৈতিক দলের সাথে জোটবদ্ধ নির্বাচন করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছি। আপনার কাছে বিশেষ অনুরোধ ঐক্যবদ্ধ নির্বাচন অনুষ্ঠানের স্বার্থে মহাজোট প্রার্থীর পক্ষে আপনার প্রার্থী প্রত্যাহার করে মহাজোটকে বিজয় করার সর্বাত্মক প্রচেষ্টা গ্রহণ করবেন। আপনার ত্যাগ, শ্রম ও আন্তরিকতা সবকিছু আমার বিবেচনায় আছে।

    আমি দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করি, আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আমাদের প্রাণ প্রিয় সংগঠন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের বিপুল ভোটে জয়লাভ করে আবারও বাংলাদেশে জনগণের সেবা করার সুযোগ পাবেন। সেই বিজয়ের অংশীদার হবেন আপনিও।

    আমি নিশ্চিতভাবে বলতে পারি আওয়ামী লীগ যদি ঐক্যবদ্ধ থাকে, তাহলে নৌকা মার্কা পরাজিত করার সাংগঠনিক শক্তি আর কারো নেই।

    আশা করি, আগামী নির্বাচনে আপনার নির্বাচনী এলাকায় বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ ও মহাজোট মনোনীত প্রার্থীর পক্ষে আপনারা সকল সাংগঠনিক দক্ষতা শক্তি-সামর্থ্য আওয়ামী লীগের বিজয় সুনিশ্চিত করবে। আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে আমাদের প্রিয় জন্মভূমি বাংলাদেশ গত এক দশকে অর্জিত উন্নয়ন-অগ্রগতির ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখতে সংগঠনের একজন আদর্শবান, ত্যাগী ও বিশ্বস্ত নেতা হিসেবে সর্বস্তরের নেতাকর্মী ও সমর্থকদের নিয়ে আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনের প্রচার-প্রচারণা স্বতঃস্ফূর্ত ও সক্রিয় অংশগ্রহণ একান্ত প্রত্যাশা করছি।

    আপনার সহযোগিতার জন্য ধন্যবাদ।

    আপনার এবং আপনার পরিবারের সার্বিক মঙ্গল কামনা করি।

    জয় বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশ চিরজীবী হোক

    শেখ হাসিনা

    সভাপতি

    বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ

    (Visited 12 times, 1 visits today)

    Leave a Reply

    Your email address will not be published. Required fields are marked *

    *