Templates by BIGtheme NET
শিরোনামঃ
Home / ছবির হাট / ‘ক্যামেরার সামনে আমাকে সাতবার নগ্ন করেন অনুরাগ’ ।। songbadprotidinbd.com

‘ক্যামেরার সামনে আমাকে সাতবার নগ্ন করেন অনুরাগ’ ।। songbadprotidinbd.com

  • ১৩-০৭-২০১৮
  • image-37861-1531490311বিনোদন ডেস্ক: সিনেমার পর্দায় নগ্নতা নতুন কিছু নয়। যুগে যুগে হলিউড-বলিউডের সিনেমায় নগ্নতা উঠে এসেছে। বিশেষ করে আধুনিকতার এই যুগে বলিউডে এই নগ্নতা এখন নিয়মিত হয়ে দাঁড়িয়েছে। তাছাড়া ওয়েব ফিল্মে কোনো সেন্সর বোর্ড না থাকায় এই নগ্নতা আরো বেড়েছে।

    সম্প্রতি নেটফ্লিক্সের ‘সেক্রেড গেমস’ ওয়েব সিরিজ ব্যাপক আলোচনায় রয়েছে। এরই মধ্যে একটি পর্বে ভারতের প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী রাজীব গান্ধীর বিরুদ্ধে আপত্তিকর সংলাপ বলায় অভিযোগ দায়ের হয়েছে নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকির বিরুদ্ধে। এছাড়া প্রথমবার ওয়েব সিরিজে অভিনয় করে প্রশংসিত হয়েছেন সাইফ আলি খান।

    তবে নতুন করে এক তরুণী কেড়েছে সবার নজর। তার নাম কুবরা সৈত। ‘সেক্রেড গেমস’-এ কুক্কু নামের রূপন্তরকামীর চরিত্রে অভিনয় করে সাড়া ফেলে দিয়েছেন কুবরা। এই ওয়েব সিরিজের জন্যই ক্যামেরার সামনে সম্পূর্ণ নগ্ন হয়েছেন তিনি।

    চরিত্রের প্রয়োজনে নগ্ন হওয়া গ্ল্যামার দুনিয়ায় নতুন নয়। কিন্তু একজন আনকোরা অভিনেত্রীর তা করতে যথেষ্ট সাহসের প্রয়োজন। এক সাক্ষাৎকারে কুবরা জানান, ফ্রন্টাল ন্যুডিটির এই দৃশ্য নিখুঁতভাবে ক্যামেরায় ধরতে পরিচালক অনুরাগ কাশ্যপ সাতবার তাকে ক্যামেরার সামনে নগ্ন করেছেন।

    অবশ্য অডিশনের সময়ই কুবরাকে বলা হয়েছিল যে, ক্যামেরার সামনে তাকে সম্পূর্ণ নগ্ন হতে হবে। তবে অনুরাগ তাকে আশ্বাস দিয়েছিলেন, নগ্নতার নান্দনিকতা বজায় রেখেই দৃশ্যটি শুট করা হবে।

    তবে যে কোনো নারীর ক্ষেত্রেই এমন দৃশ্য করতে অনেক সাহসের প্রয়োজন। এই সাহস সঞ্চয়ের জন্যই শটের আগে কুবরাকে হুইস্কি দেওয়া হত। কিন্তু পারফেকশনিস্ট অনুরাগের কিছুতেই শট পছন্দ হচ্ছিল না। প্রতিবার তিনি কুবরাকে বলতেন, ‘আমি জানি তুমি আমার উপর রেগে যাচ্ছ। কিন্তু রাগ করো না প্লিজ। আবার শটটা দিতে হবে’।

    অনুরাগের পাশাপাশি সিরিজটি পরিচালনা করেছেন বিক্রমাদিত্য মোতওয়ানে। তবে অনুরাগের পাল্লায় পড়ে বেশ কষ্ট করতে হয়েছে কুবরাকে। এর ফলও অভিনেত্রী পেয়েছেন। নওয়াজ, রাধিকা, সইফদের পাশাপাশি প্রশংসা পেয়েছেন তিনিও।

    (Visited 164 times, 1 visits today)

    Leave a Reply

    Your email address will not be published. Required fields are marked *

    *