Templates by BIGtheme NET
শিরোনামঃ
Home / সারাবাংলা / চট্টগ্রাম / বান্দরবানে পাহাড়ধসে নারীর মৃত্যু, সড়ক যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন ।। songbadprotidinbd.com

বান্দরবানে পাহাড়ধসে নারীর মৃত্যু, সড়ক যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন ।। songbadprotidinbd.com

  • ০৩-০৭-২০১৮
  • image-65990-1530609685বান্দরবান প্রতিনিধিঃ  অবিরাম ভারী বর্ষণে বান্দরবানের কালাঘাটায় পাহাড়ধসে প্রতিমা রানী (৫০) নামে এক নারীর মৃত্যু হয়েছে। এদিকে অব্যাহত বর্ষণে বান্দরবানের মেম্বারপাড়াসহ আশপাশের নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে।

    বেইলি ব্রিজ তলিয়ে যাওয়ায় বান্দরবানের সঙ্গে রাঙামাটি জেলার এবং পাহাড়ধসের কারণে রুমা উপজেলার সঙ্গে সড়ক যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন রয়েছে। আজ মঙ্গলবার সকালে পাহাড়ধসের এ ঘটনা ঘটে।

    প্রশাসন ও স্থানীয়রা জানান, রোববার থেকে বান্দরবানে অবিরাম ভারী বর্ষণ অব্যাহত রয়েছে। গত চব্বিশ ঘণ্টায় বান্দরবানে ১১২ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে।

    ভারী বৃষ্টিতে বান্দরবান জেলা শহরের কালাঘাটায় পাহাড়ধসে ঘরের মধ্যে মাটিচাপা পড়ে এক নারী। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা ঘটনাস্থলে গিয়ে মাটির নিচ থেকে প্রতিমা রানীর লাশ উদ্ধার করেন।

    নিহত নারী কালাঘাটার বাসিন্দার মিলন দাশের স্ত্রী। লাশটি উদ্ধার করে বান্দরবান হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। ঘটনাস্থল পরির্দশন করেন জেলা প্রশাসক মো. আসলাম হোসেন, মেয়র মোহাম্মদ ইসলাম বেবীসহ প্রশাসন ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

    ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বান্দরবান ফায়ার সার্ভিসের ডিউটি অফিসার রুপম কান্তি দাশ জানান, পাহাড়ধসে নিখোঁজ নারী প্রতিমা রানী দাশের লাশ মাটির নিচ থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। আর কেউ নিখোঁজ না থাকায় দুপুর দেড়টার সময় উদ্ধার তৎপরতা সমাপ্ত ঘোষণা করা হয়।

    এদিকে অবিরাম বর্ষণে বান্দরবানে জেলা শহরের মেম্বারপাড়া, আর্মিপাড়া, শেরেবাংলা নগর, ইসলামপুরসহ আশপাশের এলাকায় নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে।

    অন্যদিকে বালাঘাটার পুলপাড়া বেইলি ব্রিজ খালের পানিতে তলিয়ে যাওয়ায় বান্দরবানের সঙ্গে রাঙামাটি জেলার এবং রুমা উপজেলা সড়কের দলিয়ানপাড়াসহ কয়েকটি স্থানে পাহাড়ধসের কারণে রুমা উপজেলার সঙ্গে সড়ক যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন রয়েছে।

    এদিকে টানা বর্ষণে সাঙ্গু নদীর পানি বিপদসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। নদীর তীরবর্তী লোকজনরা নিরাপদ স্থানে আশ্রয় নেয়া শুরু করেছে। শহরের বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের অস্থায়ী আশ্রয়কেন্দ্রে অবস্থান নিয়েছে প্লাবিত অঞ্চলের লোকজনরা।

    এ বিষয়ে জেলা প্রশাসক মো. আসলাম হোসেন জানান, পাহাড়ধসে নিখোঁজ নারীর লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। রুমা উপজেলা ও রাঙামাটি জেলার সঙ্গে সড়ক যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন রয়েছে। ঝুঁকিপূর্ণ পাহাড় ও ঘরবাড়ি থেকে লোকজনদের নিরাপদ স্থানে সরে যেতে মাইকিং করা হচ্ছে। জেলার সাত উপজেলায় বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে আশ্রয়কেন্দ্র খোলা হয়েছে।

    (Visited 12 times, 1 visits today)

    Leave a Reply

    Your email address will not be published. Required fields are marked *

    *