Templates by BIGtheme NET
শিরোনামঃ
Home / অন্যান্য / সৌদি যুবরাজের নতুন শহর ‘বেহেশতের স্বপ্ন’, যেখানে নারীরা থাকবে পর্দাছাড়া ।। songbadprotidinbd.com

সৌদি যুবরাজের নতুন শহর ‘বেহেশতের স্বপ্ন’, যেখানে নারীরা থাকবে পর্দাছাড়া ।। songbadprotidinbd.com

  • ২৬-০৫-২০১৮
  • img800775-630x330আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ  মোহম্মদ বিন সালমান ক্রাউন প্রিন্স হওয়ার পর সৌদি আরবের নীতিমালায় ব্যাপক পরিবর্তন হয়। মহিলাদের ড্রাইভিং অনুমোদন থেকে শুরু করে ্মাঠে বসে মহিলারা খেলা দেখতে পারবে,। সর্বশেষ সিনেমা হলের অনুমতি ও গির্জা নির্মাণ করা

    যদিও সৌদি আরবকে চূড়ান্ত রক্ষণশীল দেশ হিসেবেই চেনে। কিন্তু ‘নিওম’ নামে এক শহর তৈরীর ঘোষণা দিয়েছেন সৌদি ক্রাউন প্রিন্স মোহম্মদ বিন সালমান। যেখানে কোনো বিধিনিষেধ বা বিভাজন থাকবে না বলে আশ্বাস দেওয়া হচ্ছে।

    সৌদি যুবরাজ বিভিন্ন প্রকল্পের মধ্যে এমন একটি প্রকল্পের কথা উল্লেখ করেছেন, যা রীতিমতো তাক লাগিয়ে দেওয়ার মতো। তিনি বলেন, সাড়ে ২৬ হাজার বর্গকিলোমিটারের একটি শহর, গোটা বিশ্বের প্রযুক্তি গবেষণার রাজধানী, সামাজিক বিধিনিষেধ থেকে মুক্ত, ট্রাফিক মুক্ত, পুরোপুরি অপ্রচলিত শক্তিচালিত। এর নাম হবে নিওম। নিওম হবে ভবিষ্যৎ পৃথিবীর ‘স্বপ্নদ্রষ্টা’দের শহর।

    প্রায় ৫০ হাজার কোটি ডলার বিনিয়োগ ধরা হয়েছে। সরকারি বিনিয়োগ থাকবে। বেসরকারি তথা আন্তর্জাতিক বিনিয়োগও চাওয়া হচ্ছে। সেই কারণেই বিধিনিষেধ মুক্ত উত্তর আধুনিক এক সমাজের প্রতিশ্রুতি দেওয়া হচ্ছে।

    সালমনের কথায়, ‘‘এই শহরটা প্রথাগত মানুষ বা প্রথাগত সংস্থাগুলির জন্য নয়।’’ মানবসভ্যতাকে পরবর্তী ধাপে পৌঁছে দেওয়ার স্বপ্ন দেখেন যাঁরা, তাঁদের জন্যই নিওম-কে গড়ে তুলতে চলেছে সৌদি আরব, জানিয়েছেন যুবরাজ।

    শহরটির বিশেষ বৈশিষ্ট হলো- এটি হবে সম্পূর্ন সৌরচালিত। রাশিয়া টুডের এক প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে নিওম শহরটি আয়তনের দিক থেকে নিউইয়র্ক সিটির চেয়ে অন্তত ৩৩ গুণ বড় হবে। শহরটি গড়ে তোলা হবে জর্ডান এবং মিশরের সীমান্ত সংলগ্ন এলাকায়।

    প্রাথমিক অবস্থায় নিওম শহরের মোট আয়তন দাঁড়াবে ২৬ হাজার ৫০০ বর্গ কিলোমিটার। আর নিউইয়র্ক সিটির আয়তন প্রায় ৮০০ বর্গ কিলোমিটার।
    এই শহরটি কেমন হবে এর ধারণা দিতে একটি প্রমোশনাল ভিডিও প্রকাশ করেছে সৌদি আরব।

    ভিডিওতে দেখা গেছে, অত্যাধুনিক প্রযুক্তির ওই শহরটি হবে সামজিক বিধি নিষেধ থেকে পুরোপুরি মুক্ত। এখানে থাকবে উন্মুক্ত পর্যটন এলাকা। শহরে হিজাব ছাড়াই চলা ফেরা করতে পারবে নারীরা।

    শুধু তাই নয়, পুরুষের পাশাপাশি কর্মক্ষেত্রে সমানতালে অংশ নেবে তারা। সৌদি আরবের মতো অতি রক্ষণশীল দেশে এমন শহর গড়ার পরিকল্পনা বিস্ময় জাগিয়েছে সারা পৃথিবীর।

    সৌদি আরবের ভবিষ্যত বাদশাহ মোহম্মদ বিন সালমান এও জানিয়েছেন, নিওম হয়ে গোটা পৃথিবীর প্রযুক্তি গবেষণার রাজধানী ও সীমাহীন সম্ভাবনার এক শহর।

    ধর্মীয় রক্ষণশীলতা থেকে বের হয়ে সৌদি আরব উদার ইসলামী শাসন ব্যবস্থা কায়েম করতে যাচ্ছে। এ প্রসঙ্গে মোহম্মদ বিন সালমান বলেছেন, অতীতে আমরা এমন রক্ষণশীল ছিলাম না। আমরা যেখানে ছিলাম, সেখানেই ফিরতে চাই।’

    (Visited 74 times, 1 visits today)

    Leave a Reply

    Your email address will not be published. Required fields are marked *

    *