Templates by BIGtheme NET
শিরোনামঃ
Home / Slide Show / মানসিক স্বাস্থ্যসেবায় দায়িত্বশীল ভূমিকা রাখুন : রাষ্ট্রপতি ।। Songbad Protidin BD

মানসিক স্বাস্থ্যসেবায় দায়িত্বশীল ভূমিকা রাখুন : রাষ্ট্রপতি ।। Songbad Protidin BD

  • ১০-১০-২০১৭
  • image-51869সংবাদ প্রতিদিন বিডি ডেস্কঃ রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ কুসংস্কার দূর করে তৃণমূল পর্যায়ে জনগণের মানসিক স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করতে সংশ্লিষ্ট সকলকে অধিকতর দায়িত্বশীল ভূমিকা পালনের আহবান জানিয়েছেন। ‘বিশ্ব মানসিক স্বাস্থ্য দিবস’ উপলক্ষে আজ এক বাণীতে তিনি এ আহবান জানান। আগামীকাল ১০ অক্টোবর বিশ্বের অন্যান্য দেশের ন্যায় বাংলাদেশে এ দিবস পালিত হবে।

    বিশ্বের অন্যান্য দেশের ন্যায় বাংলাদেশেও ‘বিশ্ব মানসিক স্বাস্থ্য দিবস ২০১৭’ উদ্যাপনকে রাষ্ট্রপতি স্বাগত জানান। দিবসটি পালনের মাধ্যমে মানসিক স্বাস্থ্য সম্পর্কে সচেতনতা বৃদ্ধি পাবে বলে তিনি উল্লেখ করেন।

    আবদুল হামিদ বলেন, গ্রামাঞ্চলে মানসিক স্বাস্থ্য বিষয়ে জনগণের মধ্যে ভুল ধারণা রয়েছে। অনেকে মানসিক রোগে আক্রান্ত ব্যক্তিকে বিজ্ঞানসম্মত চিকিৎসা না দিয়ে ঝাঁড়ফুঁক বা তাবিজ-কবজের আশ্রয় নেন। কর্মক্ষেত্রে মানসিক স্বাস্থ্যের উন্নয়নে সকলের সমন্বিত উদ্যোগের বিকল্প নেই উল্লেখ করে তিনি সকল ধরনের মানসিক রোগের সময়মত বিজ্ঞানসম্মত চিকিৎসা গ্রহণের জন্য রাষ্ট্রপতি সকলের প্রতি আহ্বান জানান।

    রাষ্ট্রপতি বলেন, স্বাস্থ্য একটি সমন্বিত বিষয় এবং সুস্বাস্থ্যের জন্য মানসিক স্বাস্থ্য অপরিহার্য। আর্থসামাজিক নানা কারণে বিশ্বব্যাপী বিষণ্ণতা ও উদ্বেগ বৃদ্ধি পাচ্ছে যা মানসিক স্বাস্থ্য অবনতির অন্যতম কারণ হিসেবে বিবেচিত। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মতে, বিশ্বে ৩০ কোটির বেশি মানুষ বিষণ্ণতায় ভুগছে যার প্রভাব পড়ছে স্বাভাবিক কর্মক্ষমতা ও উৎপাদনশীলতার ওপর।

    রাষ্ট্রপতি বলেন, বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো বাংলাদেশেও মানসিক রোগের প্রকোপ দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। এটি প্রতিরোধে শরীরের মতো মনেরও যত্ন নেয়া প্রয়োজন। কর্মক্ষেত্রে শারীরিক স্বাস্থ্যের পাশাপাশি মানসিক স্বাস্থ্য গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। এ পরিপ্রেক্ষিতে এবছর বিশ্ব মানসিক স্বাস্থ্য দিবসের প্রতিপাদ্য ‘কর্মক্ষেত্রে মানসিক স্বাস্থ্য’ যথার্থ হয়েছে। কর্মক্ষেত্রে মানসিক স্বাস্থ্যের উন্নয়নে স্বাস্থ্যসম্মত ও কর্মবান্ধব পরিবেশ, প্রয়োজনীয় ছুটি ও বিনোদনের সুযোগ, ধারাবাহিক ঝুঁকিপূর্ণ ও চাপযুক্ত কাজ পরিহারসহ সুষম খাদ্য গ্রহণ জরুরি। সূত্র : বাসস

    (Visited 16 times, 1 visits today)

    Leave a Reply

    Your email address will not be published. Required fields are marked *

    *