Templates by BIGtheme NET
শিরোনামঃ
Home / Slide Show / সবচেয়ে বড় পরমাণু ক্ষেপণাস্ত্র রাশিয়ার

সবচেয়ে বড় পরমাণু ক্ষেপণাস্ত্র রাশিয়ার

  • ২৬-১০-২০১৬
  • rt20161026163331পৃথিবীতে থাকা পারমাণবিক ক্ষেপণাস্ত্রের মধ্যে সবচেয়ে বড় ক্ষেপণাস্ত্রটির মালিক রাশিয়া। এই ক্ষেপণাস্ত্র এতটাই শক্তিশালী যে এর আঘাতে ফ্রান্স অথবা পুরো নিউ ইয়র্ক শহরের মতো বিশাল ভূখন্ডও ধ্বংস হয়ে যেতে পারে। সম্প্রতি দেশটি তার শয়তান সিরিজের এসএস-১৮ ক্ষেপণাস্ত্রের জায়গায় আরএস-২৮ ক্ষেপণাস্ত্রটি প্রতিস্থাপন করেছে।

    ব্রিটিশ মিডিয়া ইন্ডিপেডেন্টের মতে, রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের ব্যক্তিগত ইচ্ছায় এই ক্ষেপণাস্ত্রটি প্রতিস্থাপন এবং এর সংবাদ প্রকাশ করা হয়েছে। মূলত, ১৯৭৪ সালে তৎকালীন সোভিয়েত ইউনিয়নের সময়ই এই ক্ষেপণাস্ত্রটি তৈরির পদক্ষেপ নেয়া হয়েছিল।

    বিশেষজ্ঞদের মতে, আগামী ২০১৮ সাল নাগাদ রাশিয়া তার শয়তান সিরিজের ক্ষেপণাস্ত্রগুলো ব্যবহারের আওতায় আনতে পারবে। হিরোশিমা এবং নাগাসাকিতে পারমাণবিক বোমায় যত মানুষ নিহত হয়েছে, রাশিয়ার সর্বশেষ শয়তান সিরিজের একটি ক্ষেপণাস্ত্রেরই সেই ধ্বংসযজ্ঞ চালানোর ক্ষমতা রয়েছে।

    ট্রেজারি ফর ইকোনোমিক পলিসির গবেষক ড. পল ক্রেইগ রবার্টসের মতে, রাশিয়ার নতুন এই মিসাইলগুলো কয়েক সহস্র বছরের জন্য নিউ ইয়র্ক শহরকে ধ্বংস করে দিতে পারে।

    রাশিয়ার রাষ্ট্রায়ত্ব সংবাদ সংস্থা স্পুটনিক ইন্টারন্যাশনালে প্রকাশিত বিবৃতি মোতাবেক, “২০১০ সালে এক রাষ্ট্রীয় ডিক্রির আওতায় ২০১২-১৩ সাল নাগাদ এই ক্ষেপণাস্ত্র তৈরির প্রকল্প নেয়া হয়। এই প্রকল্পের উন্নয়নের জন্য ২০১১ সালের জুন মাসে রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় এক রাষ্ট্রীয় চুক্তিতে আবদ্ধ হয়েছিল।”

    এদিকে এই ক্ষেপণাস্ত্র নিয়ে রাশিয়া এবং পশ্চিমা দেশগুলোর মধ্যে উত্তেজনা শুরু হয়ে গেছে। তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধের জন্য রাশিয়া প্রস্তুতি নিচ্ছে এমন মন্তব্যও করা হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের তরফ থেকে।

     

    সংবাদ প্রতিদিন বিডি/ ডেস্ক 

    (Visited 8 times, 1 visits today)

    Leave a Reply

    Your email address will not be published. Required fields are marked *

    *