Templates by BIGtheme NET
শিরোনামঃ
Home / Slide Show / জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে: খালেদা জিয়া – Songbad Protidin BD

জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে: খালেদা জিয়া – Songbad Protidin BD

  • ১০-০৫-২০১৭
  • image-14453-1494415401সংবাদ প্রতিদিন বিডি রিপোর্টঃ  বিএনপি রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় গেলে জাতীয় ঐক্যের ভিত্তিতে জঙ্গিবাদ, সন্ত্রাসবাদ ও উগ্রবাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেবে বলে জানিয়েছেন দলের চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া

    বাংলাদেশের জন্য বিএনপির ভিশন-২০৩০ এর পূর্ণাঙ্গ রূপরেখা তুলে ধরতে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন। বুধবার বিকেল ৫টার দিকে রাজধানীর ওয়েস্টিন হোটেলের গ্র্যান্ড বলরুমে এ সংবাদ সম্মেলন শুরু হয়।

    বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া বলেছেন, ‘বিএনপি গণভোট ব্যবস্থা পুনঃপ্রবর্তন করে প্রয়োজনীয় সাংবিধানিক সংস্কার করবে। জাতীয় সংসদকে সকল জাতীয় কর্মকাণ্ডের কেন্দ্রবিন্দুতে পরিণত করা হবে। জাতীয় স্বার্থ সম্পর্কিত বিষয়ে বিরোধী দলগুলোর সঙ্গে আলোচনা করা হবে।

    তিনি বলেন, ‘ আওয়ামী লীগের ২০০৯ সালে ক্ষমতায় আসার পর সংবিধানের পঞ্চদশ ও ষষ্ঠদশ সংশোধনীর মাধ্যমে গণভোট ব্যবস্থা বাতিল, নির্বাচনকালীন তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যবস্থা বাতিল, সংসদ বহাল রেখে সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠানের বিধান প্রবর্তন, সংবিধানের কিছু নির্ধারিত বিষয় সংযোজন, পরিবর্তন, রহিতকরণ, কিংবা অন্য কোনও পন্থায় সংশোধনের অযোগ্য করার বিধান প্রবর্তন, উচ্চ আদালতের বিচারকদের অভিশংসনের ক্ষমতা জাতীয় সংসদের ওপর ন্যস্তকরণের বিধানসহ কয়েকটি অগণতান্ত্রিক বিধান প্রণয়ন করেছে। বিএনপি এসব বিতর্কিত অগণতান্ত্রিক বিধান পর্যযালোচনা ও পরীক্ষা করে প্রয়োজনীয় সাংবিধানিক সংস্কার করবে।

    সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির নেতারা

    খালেদা জিয়া আরও  বলেন, ‘জাতীয় স্বার্থ সম্পর্কিত বিষয়ে বিরোধী দলগুলোর সঙ্গে আলোচনা করা হবে। পাবলিক অ্যাকাউন্টস কমিটি এবং পাবলিক আন্ডারটেকিংস কমিটির সভাপতিত্ব বিরোধী দলের সদস্যদের ওপর ছেড়ে দেওয়া হবে ।

    এর আগে ‘ভিশন ২০৩০’ নিয়ে  বুধবার বিকাল সাড়ে ৪টা ৫৬ মিনিটে রাজধানীর হোটেল ওয়েস্টিনে দলের চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া  সংবাদ সম্মেলন শুরু করেন।

    সংবাদ সম্মেলনে খালেদা জিয়া বলেন,  ‘বিএনপি মুক্তযুদ্ধের মূলমন্ত্র বাংলাদেশের জনগণের জন্য সাম্য, মানবিক মর্যাদা ও সামাজিক ন্যায় বিচার প্রতিষ্ঠা করার কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্যে জাতিকে পৌঁছাতে দৃঢ় প্রতিজ্ঞ। মহান মুক্তিযুদ্ধের মধ্য দিয়ে বাংলাদেশের জনগণ স্বপ্ন দেখেছিল। সেই স্বপ্ন ছিল ন্যয় বিচার, মানবিক মর্যাদা ও সাম্যের। জনগণের এই স্বপ্ন আজও সফল হয়নি। স্বৈরশাসন ও দুঃশাসনের যাতাকলে স্বপ্নগুলো চুরমার হয়ে গেছে।  আজ আমাদের সকলকে সম্মিলিতভাবে সেই স্বপ্ন পূরণের জন্য নতুন করে শপথ নিতে হবে।

    সংবাদ সম্মেলনে বিএনপিপন্থী বুদ্ধিজীবী ও পেশাজীবীরা

    সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য, জাতীয়তাবাদী ঘরানার বুদ্ধিজীবী, ২০ দলীয় জোটের শরিক দলগুলোর কেন্দ্রীয় নেতা, বিভিন্ন দেশের কূটনীতিক ও কর্মকর্তা, পেশাজীবী সংগঠনের নেতা, গণমাধ্যমের  সাংবাদিক ও ব্যবসায়ী সংগঠনের নেতারা  উপস্থিত রয়েছেন।

    সংবাদ সম্মেলনে বিএনপি নেতাদের মধ্যে দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, ব্যারিস্টার মওদুদ আহমেদ, তরিকুল ইসলাম, ব্যারিস্টার জমির উদ্দিন সরকার, লে. জে. (অব). মাহবুবুর রহমান, এম কে আনোয়ার, ব্যারিস্টার রফিকুল ইসলাম মিয়া, মির্জা আব্বাস, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, নজরুল ইসলাম খান, ড. আবদুল মঈন খান, আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী উপস্থিত আছেন।

    দলের ভাইস চেয়ারম্যানদের মধ্যে চৌধুরী কামাল ইবনে ইউসুফ, আবদুল্লাহ আল নোমান, আলতাফ হোসেন চৌধুরী, হাফিজ উদ্দিন আহমেদ, ইনাম আহমেদ চৌধুরী, রুহুল আলম চৌধুরী, সেলিমা রহমান, শামসুজ্জামান দুদু, মোহাম্মদ শাহজাহান, আবদুল আউয়াল মিন্টু, আবদুল মান্নান, খন্দুকার মাহবুব হোসেন, নিতাই রায় চৌধুরী, হারুন উর রশিদ, ডা. এ. জেড এম জাহিদ হোসেন, ব্যারিস্টার শাহজাহান ওমর প্রমুখ উপস্থিত আছেন।

    উপদেষ্টাদের মধ্যে আমান উল্লাহ আমান, আতাউর রহমান ঢালী, ড. সুকোমল বড়ুয়া, অধ্যাপক তাজমেরী ইসলাম, এ জেড মোহাম্মদ আলী, হাবিবুর রহমান হাবিব, জয়নাল আবেদীন ফারুক, আবুল খায়েল ভুইয়া প্রমুখ রয়েছেন।

    ২০ দলীয় জোটের শীর্ষ নেতাদের মধ্যে কল্যাণ পার্টির সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহিম, জাগপা’র শফিউল আলম প্রধান, এনপিপির ড.ফরিদুজ্জামান ফরহাদ, বাংলাদেশ ন্যাপের জেবেল রহমান গনি, লেবার পার্টি মোস্তাফিজুর রহমান ইরান, বিজেপির আন্দালিব রহমান পার্থ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

    বিএনপির সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিক ও কূটনীতিকরা

    এছাড়াও প্রফেসর এমাজউদ্দিন আহমেদ, অর্থনীতিবিদ ড. মাহবুবউল্লাহ, সাংবাদিক মাহফুজউল্লাহ প্রমুখ উপস্থিত আছেন।

    কূটনীতিকদের মধ্যে ইউরোপীয় ইউনিয়নের পলিটিক্যাল, ট্রেড, প্রেস অ্যান্ড ইনফরমেশন মিনিস্টার কাউন্সিলর কোনস্টানটিনস ভারদাকিস, ব্রিটিশ হাইকমিশনের হেড অব পলিটিক্যাল সেকশন আদ্রিয়ান জনস, জার্মান দূতাবাসের পলিটিক্যাল, কালচার অ্যান্ড  প্রেস সেকশনের থার্ড সেক্রেটারি ক্রিস্টিন জুরপ্যাল, বাংলাদেশে নিযুক্ত ভ্যাটিক্যান সিটির সেকেন্ড সেক্রেটারি অ্যান্ড ডিএইচএম লুকা, মারাবেসে, তুরস্কের ডেপুটি হেড অব মিশন ওরহান আইয্যাক, চীনের পলিটিক্যাল সেকশনের থার্ড সেকেটোরি লি জুআংইউ রেড ক্রসের বাংলাদেশ শাকলা ডেপুটি হেড অব ডেলিগেশন বোরিস কেলেসেভিক, ডেনমার্কের ডেপুটি হেড অব মিশন জ্যাকব হাউগ্যার্ড, সুইডেনের হেডভিগ সোদারলিন্ড, ইউএনডিপির প্রতিনিধি চ্যারলেস ডেনহেজ, ইন্দোনেশিয়ার ইনফরমেশন, সোস্যাল অ্যান্ড কালচার সেকেন্ড সেক্রেটারি ফিতরি টিজ্যানদ্রা প্রিজান্তি প্রমুখ উপস্থিত রয়েছেন।

    সংবাদ প্রতিদিন বিডি/ সালাউদ্দিন আহমেদ 

    (Visited 7 times, 1 visits today)

    আরও সংবাদ

    Leave a Reply

    Your email address will not be published. Required fields are marked *

    *